মনী, মযি এবং অদি কী? – মযি বা অদি বের হলে গোসল ফরজ হবে?

মনী হলো সাদা, আঠাল এবং গাঢ় পদার্থ, যার স্খলন পুরুষাঙ্গকে নিস্তেজ করে দেয়। মযি হচ্ছে সাদা, পাতলা তরল পদার্থ, যা স্ত্রীর সঙ্গে আদর-আহলাদের সময় নির্গত হয় (এ ব্যাখ্যা হযরত আয়শা (রা)…

Continue Reading মনী, মযি এবং অদি কী? – মযি বা অদি বের হলে গোসল ফরজ হবে?

গোসল ফরয হওয়ার পরই গোসল করতে হবে? – স্ত্রী সহবাসের পরই গোসল করতে হবে?

আল্লাহ তাআলা বিবাহের মাধ্যমে নারী-পুরুষের সহবাস তথা বংশ বৃদ্ধিকে কল্যাণের কাজে পরিণত করেছেন। বিবাহের ফলে স্বামী-স্ত্রীর যাবতীয় বৈধ কার্যক্রম হয়ে ওঠে কল্যাণ ও ছাওয়াবের কাজ এবং বংশবৃদ্ধির একমাত্র মাধ্যম হচ্ছে স্বামী-স্ত্রীর…

Continue Reading গোসল ফরয হওয়ার পরই গোসল করতে হবে? – স্ত্রী সহবাসের পরই গোসল করতে হবে?

সাদা স্রাব বের হলে নামাজ যেভাবে পড়বেন | How to perform prayers when the white discharge comes out.

লিউকোরিয়া বা সাদা স্রাব হচ্ছে সমস্ত মহিলাদের একটি সর্বজনীন সমস্যা। অধিকাংশ স্রাব জীবন শৈলী ও শারীর বৃত্তীয় সংক্রান্ত, যার কোন চিকিত্‍সা প্রয়োজন হয় না। তবে এটা প্রচুর পরিমানে বা রক্তে…

Continue Reading সাদা স্রাব বের হলে নামাজ যেভাবে পড়বেন | How to perform prayers when the white discharge comes out.

আগুনে পাকানো কোনো বস্তু খেলে অযু ভঙ্গ হবে কি? দলীলসহ জানুন।

আগুনে পাকানো কোনো বস্তু খাওয়ার দ্বারা অযু ভঙ্গ হবে কি না?- এ ব্যাপারে ইসলামের প্রথমিক যুগে সাহাবায়ে কেরামগণের মধ্যে কিছুটা মতানৈক্য ছিল। যেমনঃ-হযরত আবু হুরায়রা, আব্দুল্লাহ ইবনে ওমর এবং যায়েদ…

Continue Reading আগুনে পাকানো কোনো বস্তু খেলে অযু ভঙ্গ হবে কি? দলীলসহ জানুন।

হায়েয বা মাসিকের জন্য কখন থেকে নামায পড়া মাফ হবে বা পড়তে হবে না?

উত্তরঃ- যখনই মাসিক শুরু হবে তখন থেকে মাসিক শেষ হওয়ার পূর্ব পর্যন্ত, মধ্যবতী সময়ের সব ওয়াক্তের নামায  মাফ অর্থাৎ নামায পড়তে হবে না।। যদিও কোনো ওয়াক্তের ফরয নামাযের মধ্যে হায়েয…

Continue Reading হায়েয বা মাসিকের জন্য কখন থেকে নামায পড়া মাফ হবে বা পড়তে হবে না?

কিভাবে ঘুমালে অযু ভঙ্গ হবে?

উত্তরঃ- যদি কোনো ব্যক্তি কাত হয়ে বা হেলান কিংবা কোনো কিছুতে ঠেস লাগিয়ে এমনভাবে ঘুমায় যে, তা সড়িয়ে ফেললে, সে পড়ে যাবে। তখন এমতাবস্থায় অযু ভঙ্গ হবে।নবী করিম (সা) বলেছেন…

Continue Reading কিভাবে ঘুমালে অযু ভঙ্গ হবে?

কতটুকু রক্ত বা পুজ বের হলে অযু ভঙ্গ হবে?

উত্তরঃ- শরিরের কোনো স্থান থেকে রক্ত বা পুজ যদি গড়িয়ে ক্ষতস্থান অতিক্রম করে, তাহলে অযু ভঙ্গ হবে। আর, যদি ক্ষতস্থান অতিক্রম না করে, তাহলে অযু ভঙ্গ হবে না।তথ্যসূত্র ঃ- হেদায়া ১ম…

Continue Reading কতটুকু রক্ত বা পুজ বের হলে অযু ভঙ্গ হবে?

ক্ষতস্থান থেকে কীট বের হলে অযু ভঙ্গ হবে কি?

উত্তরঃ- ক্ষতস্থান থেকে কীট বের হলে অযু ভঙ্গ হবে না। তবে, পায়খানার রাস্তা দিয়ে কোনো কীট বের হলে অযু ভঙ্গ হবে। কারন, মূলত কীট নাপাক না হলেও, তার দেহে লেগে…

Continue Reading ক্ষতস্থান থেকে কীট বের হলে অযু ভঙ্গ হবে কি?

নামাযে অট্টহাসির কারণে অযু ভঙ্গ হবে কি?

উত্তরঃ- ক্বিয়াস এবং যুক্তি অনুযায়ী নামাযের মধ্যে অট্টহাসির কারনে, অযু ভঙ্গ হওয়ার কথা না। এটা ঈমাম শাফেয়ী (র) এর মত ও। কারণ, এটা নির্গত নাজাসত নয়। এ জন্য জানাযার নামাযে, তেলাওয়াতে…

Continue Reading নামাযে অট্টহাসির কারণে অযু ভঙ্গ হবে কি?

হঠাৎ কোনো মাসে ১০ দিনের বেশি মাসিক (স্রাব) হলে করণীয় বা বিধান কি?

হঠাৎ কোনো মাসে ১০ দিনের বেশি মাসিক (স্রাব) হলে করণীয় বা বিধানযদি কোনো মহিলার ৩, ৪ বা ৫-৯ দিন মাসিক হওয়ার অভ্যাস থাকে,  আর কোনো মাসে হঠাৎ ১০ দিনের বেশি মাসিক…

Continue Reading হঠাৎ কোনো মাসে ১০ দিনের বেশি মাসিক (স্রাব) হলে করণীয় বা বিধান কি?